ঢাকা ০৯:১০ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফেনীর ছাগলনাইয়ায় বিষপানে গৃহবধূর আত্মহত্যা।

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৬:২১:৪৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১০ জুন ২০১৯ ২১৫ বার পড়া হয়েছে

১০ জুন ২০১৯ ,বিন্দুবাংলা টিভি. কম ,

সৈয়দ কামাল,ফেনী থেকেঃফেনীর ছাগলনাইয়া উপজেলাধীন ৫ নং মহামায়া ইউনিয়নে জয়নগর গ্রামের, আবদুল কাদের প্রকাশ লাইনম্যান কাদেরের পুত্র,মোঃফারুক হোসেনের স্ত্রী পাঁচ বছর বয়সী এক পুত্র সন্তানের জননী চার মাসের অন্তঃস্বর্তা গৃহবধূ রত্না আক্তার (২৫) ৯ জুন দুপুরে স্বামীর বাড়ীতে বিষ প্রাণে আত্নহত্যা করেছে।
ঘটনাস্থলে গিয়ে জানাযায়,গত কয়েকমাস পূর্বে রত্না বেসরকারী এনজিও ব্যাংক আশা ব্যাংকথেকে ঋণ নিয়ে দুটি গরু কিনেন,ঘটনার দিন সকালে রত্নার অমতে গরু দু’টি বিক্রি করার বিষয় নিয়ে,রত্নার সাথে তার স্বামী ফারুকের কথা কাটাকাটি হয়।এই কথা কাটাকাটির জেরধরে দুপুরে রত্না স্বামীর ঘরের একটি কক্ষে বিষ প্রাণে আত্নহত্যা করে।
রত্নার আত্নহত্যার বিষয়টি তার পিতা পরশুরাম উপজেলার অলকা গ্রামের, বেলাল হোসেন পরিকল্পিত হত্যাকান্ড বলে দাবী করছেন।রত্নার আত্নহত্যার ঘটনাটি হত্যা না আত্নহত্যা সে বিষয় জানতে,ঘটনাস্থল থেকে রত্নার লাশ উদ্ধারকারী ছাগলনাইয়া থানার পুলিশের উপ-পরিদর্শক খুরশিদ আলমের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান,লাশের প্রাথমিক সুরতহাল রিপোর্ট তৈরীকালীন লাশের শরীরের কোন অংশে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি।প্রাথমিকভাবে ঘটনাটি আত্নহত্যার ঘটনা বলেই মনে হচ্ছে, ময়না তদন্তের জন্য লাশটিকে ফেনী আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।লাশের ময়না তদন্ত রিপোর্ট না আসা পর্যন্ত এটি হত্যা না আত্নহত্যা সে বিষয়টি এখনি নিশ্চিত কিছু বলা যাচ্ছেনা।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

ফেনীর ছাগলনাইয়ায় বিষপানে গৃহবধূর আত্মহত্যা।

আপডেট সময় : ০৬:২১:৪৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১০ জুন ২০১৯

১০ জুন ২০১৯ ,বিন্দুবাংলা টিভি. কম ,

সৈয়দ কামাল,ফেনী থেকেঃফেনীর ছাগলনাইয়া উপজেলাধীন ৫ নং মহামায়া ইউনিয়নে জয়নগর গ্রামের, আবদুল কাদের প্রকাশ লাইনম্যান কাদেরের পুত্র,মোঃফারুক হোসেনের স্ত্রী পাঁচ বছর বয়সী এক পুত্র সন্তানের জননী চার মাসের অন্তঃস্বর্তা গৃহবধূ রত্না আক্তার (২৫) ৯ জুন দুপুরে স্বামীর বাড়ীতে বিষ প্রাণে আত্নহত্যা করেছে।
ঘটনাস্থলে গিয়ে জানাযায়,গত কয়েকমাস পূর্বে রত্না বেসরকারী এনজিও ব্যাংক আশা ব্যাংকথেকে ঋণ নিয়ে দুটি গরু কিনেন,ঘটনার দিন সকালে রত্নার অমতে গরু দু’টি বিক্রি করার বিষয় নিয়ে,রত্নার সাথে তার স্বামী ফারুকের কথা কাটাকাটি হয়।এই কথা কাটাকাটির জেরধরে দুপুরে রত্না স্বামীর ঘরের একটি কক্ষে বিষ প্রাণে আত্নহত্যা করে।
রত্নার আত্নহত্যার বিষয়টি তার পিতা পরশুরাম উপজেলার অলকা গ্রামের, বেলাল হোসেন পরিকল্পিত হত্যাকান্ড বলে দাবী করছেন।রত্নার আত্নহত্যার ঘটনাটি হত্যা না আত্নহত্যা সে বিষয় জানতে,ঘটনাস্থল থেকে রত্নার লাশ উদ্ধারকারী ছাগলনাইয়া থানার পুলিশের উপ-পরিদর্শক খুরশিদ আলমের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান,লাশের প্রাথমিক সুরতহাল রিপোর্ট তৈরীকালীন লাশের শরীরের কোন অংশে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি।প্রাথমিকভাবে ঘটনাটি আত্নহত্যার ঘটনা বলেই মনে হচ্ছে, ময়না তদন্তের জন্য লাশটিকে ফেনী আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।লাশের ময়না তদন্ত রিপোর্ট না আসা পর্যন্ত এটি হত্যা না আত্নহত্যা সে বিষয়টি এখনি নিশ্চিত কিছু বলা যাচ্ছেনা।