ঢাকা ০৮:৫৩ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ছাগলনাইয়া থানার পুলিশ কনষ্টেবল আশিকের সততার দৃষ্টান্ত।

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৩:৩৩:১৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০১৯ ১৮৬ বার পড়া হয়েছে
১৪ জুন,২০১,বিন্দুবাংলা টিভি. কম,   সৈয়দ কামাল,ফেনী (উত্তর) প্রতিনিধঃসড়কের পাশে পাওয়া ৬৩,৮৫৫ (তেচোট্টি হাজার আট শত পাঞ্চান্ন) টাকা প্রকৃত মালিকের হাতে তুলে দিয়ে সততার দৃষ্টান্ত দেখালেন,ছাগলনাইয়া থানার পুলিশ কনষ্টেবল আশিকুর রহমান।প্রতিদিনকার মত ১৩ জুন রাতে থানার গাড়ী নিয়ে রাত্রিকালীন টহলে বের হন আশিক।থানা এলাকার বিভিন্ন সড়কে প্রতিদিনকার মত টহল দেওয়াকালীন,গভীর রাতে ফেনী-ছাগলনাইয়া সড়কে টহল দিতে গেলে,পাঠাননগর এলাকায় কসাই ব্রিজ নামক স্থানে সড়কের পাশে গাড়ীর লাইটের আলোতে টাকার বান্ডেলের মত কিছু একটা দেখে,অদূরে গাড়ীটি থামিয়ে স্ট্যাটে রেখে আশিক গাড়ী থেকে নেমে বান্ডেলটার কাছে গিয়ে দেখতে পায়,সত্যিই সেটা টাকার বান্ডেল।
আশিক টাকা গুলি তুলে নিয়ে রাত্রিকালীন টহল শেষে থানায় চলে আসে।সকালে আশিক ছাগলনাইয়া পৌর শহরে গেলে,শহরের মধ্যে বাড়ী ফেনী শহরে জুতার দোকান আছে, এমন একজন ব্যবসায়ী মহসিন কায়সার,রাতে তিনি ফেনী থেকে মোটরসাইকেলে আসার সময় পথের মধ্যে কোন এক জায়গায় টাকা হারিয়ে পেলার বিষয় নিয়ে লোকজনের মধ্যে আলোচনা হচ্ছিল।আশিক আলোচনাকারীদের মধ্যথেকে একজনকে ডেকে যার টাকা হারানো গেছে তাকে থানায় যেতে বলে,সে থানায় চলে আসে।কথাটি শুনে ব্যবসায়ী থানায় গেলে তাকে বিভিন্ন প্রশ্ন করার পর সঠিক উত্তর পেয়ে,সড়কের পাশে পাওয়া টাকা গুলি যে,মহসিন কায়সারের হারিয়ে পেলা টাকা সে বিষয় আশিক নিশ্চিত হয়।পরে থানার সেকেন্ড অফিসার মনিরুল ইসলামের উপস্থিতিতে আশিক প্রকৃত টাকার মালিক ব্যবসায়ী মহসিন কায়সারের হাতে টাকা গুলি তুলে দিয়ে,সততার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন পুলিশ কনষ্টেবল  আশিকুর রহমান।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

ছাগলনাইয়া থানার পুলিশ কনষ্টেবল আশিকের সততার দৃষ্টান্ত।

আপডেট সময় : ০৩:৩৩:১৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০১৯
১৪ জুন,২০১,বিন্দুবাংলা টিভি. কম,   সৈয়দ কামাল,ফেনী (উত্তর) প্রতিনিধঃসড়কের পাশে পাওয়া ৬৩,৮৫৫ (তেচোট্টি হাজার আট শত পাঞ্চান্ন) টাকা প্রকৃত মালিকের হাতে তুলে দিয়ে সততার দৃষ্টান্ত দেখালেন,ছাগলনাইয়া থানার পুলিশ কনষ্টেবল আশিকুর রহমান।প্রতিদিনকার মত ১৩ জুন রাতে থানার গাড়ী নিয়ে রাত্রিকালীন টহলে বের হন আশিক।থানা এলাকার বিভিন্ন সড়কে প্রতিদিনকার মত টহল দেওয়াকালীন,গভীর রাতে ফেনী-ছাগলনাইয়া সড়কে টহল দিতে গেলে,পাঠাননগর এলাকায় কসাই ব্রিজ নামক স্থানে সড়কের পাশে গাড়ীর লাইটের আলোতে টাকার বান্ডেলের মত কিছু একটা দেখে,অদূরে গাড়ীটি থামিয়ে স্ট্যাটে রেখে আশিক গাড়ী থেকে নেমে বান্ডেলটার কাছে গিয়ে দেখতে পায়,সত্যিই সেটা টাকার বান্ডেল।
আশিক টাকা গুলি তুলে নিয়ে রাত্রিকালীন টহল শেষে থানায় চলে আসে।সকালে আশিক ছাগলনাইয়া পৌর শহরে গেলে,শহরের মধ্যে বাড়ী ফেনী শহরে জুতার দোকান আছে, এমন একজন ব্যবসায়ী মহসিন কায়সার,রাতে তিনি ফেনী থেকে মোটরসাইকেলে আসার সময় পথের মধ্যে কোন এক জায়গায় টাকা হারিয়ে পেলার বিষয় নিয়ে লোকজনের মধ্যে আলোচনা হচ্ছিল।আশিক আলোচনাকারীদের মধ্যথেকে একজনকে ডেকে যার টাকা হারানো গেছে তাকে থানায় যেতে বলে,সে থানায় চলে আসে।কথাটি শুনে ব্যবসায়ী থানায় গেলে তাকে বিভিন্ন প্রশ্ন করার পর সঠিক উত্তর পেয়ে,সড়কের পাশে পাওয়া টাকা গুলি যে,মহসিন কায়সারের হারিয়ে পেলা টাকা সে বিষয় আশিক নিশ্চিত হয়।পরে থানার সেকেন্ড অফিসার মনিরুল ইসলামের উপস্থিতিতে আশিক প্রকৃত টাকার মালিক ব্যবসায়ী মহসিন কায়সারের হাতে টাকা গুলি তুলে দিয়ে,সততার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন পুলিশ কনষ্টেবল  আশিকুর রহমান।