ঢাকা ০১:৫৭ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জুন মাসে জোর পূর্বক কিস্তি আদায় করা যাবেনা : ইউএনও মেঘনা

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৭:৩২:১১ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৪ জুন ২০২০ ১৩৭ বার পড়া হয়েছে

১৪ জুন ২০২০, আজকের মেঘনা ডটকম, এম এইচ বিপ্লব সিকদার        কুমিল্লার মেঘনা উপজেলায় জোর পূর্বক কারো কাছ থেকে কিস্তি আদায় করা যাবেনা উপজেলার আর্থিক প্রতিষ্ঠান, এনজিও গুলোর প্রতি উদ্দ্যেশ্যে করে বলেন। তিনি আজ বিন্দুবাংলা টিভি কে এক প্রশ্নের জবাবে এ বক্তব্য প্রদান করেন। তিনি বলেন সরকারি নির্দেশনা হচ্ছে এনজিও, আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কর্মীরা ফিল্ডে যেতে পারবে কিস্তি আদায়ের জন্য গ্রাহকের নিকট চাইতে পারবে যার সম্ভব সে দিবে যার সম্ভব না সে দিবেনা যদি কোন কর্মী জোর পূর্বক কিস্তি আদায় করার চেষ্টা করে সে ক্ষেত্রে আমরা সু নির্দিষ্ট অভিযোগের ভিত্তিতে ব্যবস্থা নিবো। এ দিকে করোনা ভাইরাস এর কারনে মানুষ কর্মহীন হয়ে পরায় খেটে খাওয়া মানুষ গুলো দৈন্যদশায় জীবন যাপন করছেন এর মধ্যে কিস্তি পরিশোধ করার সক্ষমতা না থাকায় মরার উপর খরার ঘা এর মত। সাম্প্রতিক সময়ে উপজেলার বিভিন্ন এনজিও গুলো কিস্তি আদায় করছেন এমনকি যুব উন্নয়ন থেকেও কিস্তি আদায় করতে যাচ্ছেন এতে মানুষ দিশেহারা হয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সহ বিভিন্ন মাধ্যমে অভিযোগ উঠেছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

জুন মাসে জোর পূর্বক কিস্তি আদায় করা যাবেনা : ইউএনও মেঘনা

আপডেট সময় : ০৭:৩২:১১ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৪ জুন ২০২০

১৪ জুন ২০২০, আজকের মেঘনা ডটকম, এম এইচ বিপ্লব সিকদার        কুমিল্লার মেঘনা উপজেলায় জোর পূর্বক কারো কাছ থেকে কিস্তি আদায় করা যাবেনা উপজেলার আর্থিক প্রতিষ্ঠান, এনজিও গুলোর প্রতি উদ্দ্যেশ্যে করে বলেন। তিনি আজ বিন্দুবাংলা টিভি কে এক প্রশ্নের জবাবে এ বক্তব্য প্রদান করেন। তিনি বলেন সরকারি নির্দেশনা হচ্ছে এনজিও, আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কর্মীরা ফিল্ডে যেতে পারবে কিস্তি আদায়ের জন্য গ্রাহকের নিকট চাইতে পারবে যার সম্ভব সে দিবে যার সম্ভব না সে দিবেনা যদি কোন কর্মী জোর পূর্বক কিস্তি আদায় করার চেষ্টা করে সে ক্ষেত্রে আমরা সু নির্দিষ্ট অভিযোগের ভিত্তিতে ব্যবস্থা নিবো। এ দিকে করোনা ভাইরাস এর কারনে মানুষ কর্মহীন হয়ে পরায় খেটে খাওয়া মানুষ গুলো দৈন্যদশায় জীবন যাপন করছেন এর মধ্যে কিস্তি পরিশোধ করার সক্ষমতা না থাকায় মরার উপর খরার ঘা এর মত। সাম্প্রতিক সময়ে উপজেলার বিভিন্ন এনজিও গুলো কিস্তি আদায় করছেন এমনকি যুব উন্নয়ন থেকেও কিস্তি আদায় করতে যাচ্ছেন এতে মানুষ দিশেহারা হয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সহ বিভিন্ন মাধ্যমে অভিযোগ উঠেছে।