ঢাকা ১১:৫৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০২৪, ২৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সরকারি দামেও বিক্রি হচ্ছে না আলু

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৭:৫০:৩১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০ ১৪৫ বার পড়া হয়েছে
সরকার দ্বিতীয় দফায় ৫ টাকা বাড়িয়ে পাইকারি পর্যায়ে আলুর দাম ৩০ টাকা পুনর্নির্ধারণ করলেও ওই দামেও আলু বিক্রি হচ্ছে না। আড়তদাররা বলছেন, বাজারে আলুর দাম কমতে আরও দুই থেকে তিন দিন লাগবে।

পাইকারি ব্যবসায়ীদের দাবি, আগে বাড়তি দামে কেনা থাকায় সরকার নির্ধারিত দামে আলু বিক্রি করা সম্ভব হচ্ছে না। কম দামের আলু বাজারে আসলে দাম কমবে। বর্তমানে প্রতি পাল্লা আলু ২১০ টাকা দরে বিক্রি করা হচ্ছে। হিসাব করলে দেখা যায় পাইকারি পর্যায়ে প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৪২ টাকা দরে। এদিকে সরকার নির্ধারিত দামে কিনতে না পেরে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন খুচরা পর্যায়ের বিক্রেতারা।

মঙ্গলবার (২০ অক্টোবর) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, হিমাগার মালিক ও আড়তদার সঙ্গে বৈঠক করে পাইকারি পর্যায়ে ৩০ ও ভোক্তা পর্যায়ে ৩৫ টাকা নির্ধারণ করে। এদিকে টিসিবির মাধ্যমে বুধবার (২১ অক্টোবর) থেকে ২৫ টাকা দরে খোলা বাজারে আলু বিক্রির সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

সরকারি দামেও বিক্রি হচ্ছে না আলু

আপডেট সময় : ০৭:৫০:৩১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০
সরকার দ্বিতীয় দফায় ৫ টাকা বাড়িয়ে পাইকারি পর্যায়ে আলুর দাম ৩০ টাকা পুনর্নির্ধারণ করলেও ওই দামেও আলু বিক্রি হচ্ছে না। আড়তদাররা বলছেন, বাজারে আলুর দাম কমতে আরও দুই থেকে তিন দিন লাগবে।

পাইকারি ব্যবসায়ীদের দাবি, আগে বাড়তি দামে কেনা থাকায় সরকার নির্ধারিত দামে আলু বিক্রি করা সম্ভব হচ্ছে না। কম দামের আলু বাজারে আসলে দাম কমবে। বর্তমানে প্রতি পাল্লা আলু ২১০ টাকা দরে বিক্রি করা হচ্ছে। হিসাব করলে দেখা যায় পাইকারি পর্যায়ে প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৪২ টাকা দরে। এদিকে সরকার নির্ধারিত দামে কিনতে না পেরে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন খুচরা পর্যায়ের বিক্রেতারা।

মঙ্গলবার (২০ অক্টোবর) কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, হিমাগার মালিক ও আড়তদার সঙ্গে বৈঠক করে পাইকারি পর্যায়ে ৩০ ও ভোক্তা পর্যায়ে ৩৫ টাকা নির্ধারণ করে। এদিকে টিসিবির মাধ্যমে বুধবার (২১ অক্টোবর) থেকে ২৫ টাকা দরে খোলা বাজারে আলু বিক্রির সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।