ঢাকা ১১:৫৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০২৪, ২৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ধামইরহাটে কৃষকের ধান পুড়িয়ে দিলো দুর্বৃত্তরা

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৯:১৭:১১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০ ১৬১ বার পড়া হয়েছে

নওগাঁর ধামইরহাটে রাসায়নিক স্প্রে করে কৃষদের ধান পুড়িয়ে দিয়েছে দূর্বৃত্তরা। এতে জমির মালিকের সমস্ত আধা-পাকা ধান বিষক্রিয়ায় বিবর্ণরুপ দেখা দিয়েছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, পৌর সদরস্থ উত্তর চকযদু গ্রামের মৃত ইসমাইল হোসেনের ছেলে আ. কাদের দীর্ঘদিন যাবৎ ক্রয়সূত্রে প্রাপ্ত জমিতে চাষাবাদ করে আসছিলেন।

পূর্ব শত্রুতার জেরে ২৬ অক্টোবর রাতের আধারে ১৯ শতক জমির পুরোটাতেই রাসায়নিক স্প্রে করে দুর্বৃত্তরা, ২৮ অক্টোবর সকালে জমিতে গিয়ে জমির আধাপাকা ধান বিবর্ণ দেখে দিশেহারা হন কৃষক আ.কাদের।

জমির মালিক আ. কাদের অভিযোগ করেন, মালাহার গ্রামের মৃত আছির উদ্দিনের ছেলে মেহেদী ও সোহাগ ওই জমি দখলের পাঁয়তারা করছিল, জমির নিকটবর্তী লোকদের কাছে ও আমাকেও হুমকি দিয়ে আসছিল, তারাই এই ঘটনা ঘটিয়েছেন বলে ভুক্তভোগী কৃষক আ. কাদের দাবী করেন।

প্রতিবেশী মোমেনুর রহমান ঝন্টু বলেন, অভিযুক্ত সোহাগ কৃষক আ. কাদেরের ধান বিষ দিয়ে পোড়ানোর হুমকি আমার সামনেও দিয়েছিল একাধিকবার।

তবে অভিযুক্ত মেহেদী ও সোহাগের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করে পাওয়া যায়নি।

বুধবার দুপুরে এ বিষয়ে ভুক্তভোগী জমির মালিক আ. কাদের বাদী হয়ে ধামইরহাট থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

ধামইরহাট থানার ওসি আবদুল মমিন জানান, বিষ দিয়ে ধান বিনষ্ট করা গর্হিত দন্ডনীয় অপরাধ, বাদীর অভিযোগ হাতে পেলে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

ধামইরহাটে কৃষকের ধান পুড়িয়ে দিলো দুর্বৃত্তরা

আপডেট সময় : ০৯:১৭:১১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০

নওগাঁর ধামইরহাটে রাসায়নিক স্প্রে করে কৃষদের ধান পুড়িয়ে দিয়েছে দূর্বৃত্তরা। এতে জমির মালিকের সমস্ত আধা-পাকা ধান বিষক্রিয়ায় বিবর্ণরুপ দেখা দিয়েছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, পৌর সদরস্থ উত্তর চকযদু গ্রামের মৃত ইসমাইল হোসেনের ছেলে আ. কাদের দীর্ঘদিন যাবৎ ক্রয়সূত্রে প্রাপ্ত জমিতে চাষাবাদ করে আসছিলেন।

পূর্ব শত্রুতার জেরে ২৬ অক্টোবর রাতের আধারে ১৯ শতক জমির পুরোটাতেই রাসায়নিক স্প্রে করে দুর্বৃত্তরা, ২৮ অক্টোবর সকালে জমিতে গিয়ে জমির আধাপাকা ধান বিবর্ণ দেখে দিশেহারা হন কৃষক আ.কাদের।

জমির মালিক আ. কাদের অভিযোগ করেন, মালাহার গ্রামের মৃত আছির উদ্দিনের ছেলে মেহেদী ও সোহাগ ওই জমি দখলের পাঁয়তারা করছিল, জমির নিকটবর্তী লোকদের কাছে ও আমাকেও হুমকি দিয়ে আসছিল, তারাই এই ঘটনা ঘটিয়েছেন বলে ভুক্তভোগী কৃষক আ. কাদের দাবী করেন।

প্রতিবেশী মোমেনুর রহমান ঝন্টু বলেন, অভিযুক্ত সোহাগ কৃষক আ. কাদেরের ধান বিষ দিয়ে পোড়ানোর হুমকি আমার সামনেও দিয়েছিল একাধিকবার।

তবে অভিযুক্ত মেহেদী ও সোহাগের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করে পাওয়া যায়নি।

বুধবার দুপুরে এ বিষয়ে ভুক্তভোগী জমির মালিক আ. কাদের বাদী হয়ে ধামইরহাট থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

ধামইরহাট থানার ওসি আবদুল মমিন জানান, বিষ দিয়ে ধান বিনষ্ট করা গর্হিত দন্ডনীয় অপরাধ, বাদীর অভিযোগ হাতে পেলে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।