ঢাকা ১১:৫৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০২৪, ২৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নারায়ণগঞ্জে অভিমান করে কলেজছাত্র‍ীর আত্মহত্যা

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৩:৫২:১০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০ ১৫০ বার পড়া হয়েছে

নারায়ণগঞ্জে মায়ের সাথে অভিমান করে কলেজ ছাত্র‍ী তামান্না (১৮) আত্মহত্যা করেছে।

মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) রাত ৯টার দিকে ফতুল্লার দেওভোগ নূর মসজিদ এলাকায় নিজ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতের বাবা আফজাল হোসেন জানান, তামান্না নারায়ণগঞ্জ মর্গ্যান স্কুল এন্ড কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী। মঙ্গলবার বিকেলে তামান্নার সাথে তার মায়ের কথা কাটাকাটি হয়। এরপর থেকে তার মেয়ে অভিমান করে ঘরের দরজা আটকে বসে ছিল। রাতে অনেক ডাকাডাকির পরও তামান্না রুমের দরজা খুলছিল না। এ সময় তা মা জানালা দিয়ে দেখতে পায় তামান্না গলায় শাড়ি প্যেঁচিয়ে সিলিং ফ্যানের সাথে ঝুলে আছে। এরপর তামান্নার মায়ের চিৎকার শুনে আশপাশের মানুষ এসে তার নিথর দেহ নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আসলাম হোসেন বলেন, মায়ের সাথে অভিমান করে তামান্না আত্মহত্যা করেছে বলে দাবি করেছে নিহতের পরিবার। ঘটনাটি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্র‍হণ করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

নারায়ণগঞ্জে অভিমান করে কলেজছাত্র‍ীর আত্মহত্যা

আপডেট সময় : ০৩:৫২:১০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০

নারায়ণগঞ্জে মায়ের সাথে অভিমান করে কলেজ ছাত্র‍ী তামান্না (১৮) আত্মহত্যা করেছে।

মঙ্গলবার (২৭ অক্টোবর) রাত ৯টার দিকে ফতুল্লার দেওভোগ নূর মসজিদ এলাকায় নিজ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতের বাবা আফজাল হোসেন জানান, তামান্না নারায়ণগঞ্জ মর্গ্যান স্কুল এন্ড কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী। মঙ্গলবার বিকেলে তামান্নার সাথে তার মায়ের কথা কাটাকাটি হয়। এরপর থেকে তার মেয়ে অভিমান করে ঘরের দরজা আটকে বসে ছিল। রাতে অনেক ডাকাডাকির পরও তামান্না রুমের দরজা খুলছিল না। এ সময় তা মা জানালা দিয়ে দেখতে পায় তামান্না গলায় শাড়ি প্যেঁচিয়ে সিলিং ফ্যানের সাথে ঝুলে আছে। এরপর তামান্নার মায়ের চিৎকার শুনে আশপাশের মানুষ এসে তার নিথর দেহ নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আসলাম হোসেন বলেন, মায়ের সাথে অভিমান করে তামান্না আত্মহত্যা করেছে বলে দাবি করেছে নিহতের পরিবার। ঘটনাটি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্র‍হণ করা হবে।