ঢাকা ১১:৫০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিমানের কলকাতা ফ্লাইট অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৫:৪১:৪৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৯ নভেম্বর ২০২০ ১৫৪ বার পড়া হয়েছে

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। ফাইল ছবি

০৯ নভেম্বর ২০২০, ডেস্ক রিপোর্ট

অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করা হয়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের কলকাতা ফ্লাইট। আগামী বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে।

বিমানের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের নোটিশ বোর্ডে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এ বিষয়ে বিস্তারিত পরবর্তীতে জানানো হবে বলে জানায় বিমান।

এদিকে ফ্লাইট স্থগিতের বিষয়ে সুস্পষ্ট কোনো কারণ না থাকলেও এই মুহূর্তে ভারতে ট্যুরিস্ট ভিসা বন্ধ থাকায় কলকাতা রুটে যাত্রী সংকটকে দায়ী করছেন অনেকে।

এর আগে গত ২৮ অক্টোবর থেকে ‘এয়ার বাবল’ প্যাকেজ চুক্তির আওতায় ঢাকা থেকে কলকাতা, দিল্লি ও চেন্নাই- এই ৩ টি রুটে ফ্লাইট চালু করেছিল বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স।

এছাড়া ঢাকা থেকে কলকাতা এবং ঢাকা ও চট্টগ্রাম থেকে চেন্নাই রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করছে বেসরকারি বিমান পরিবহন সংস্থা ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স। এদিকে অনুমতি পেলেও এখনও ভারত রুটে ফ্লাইট পরিচালনা শুরু করেনি নভোএয়ার।

এয়ারবাবল চুক্তির অধীনে ভারতের এয়ার ইন্ডিয়া, ইন্ডিগো, স্পাইসজেট, ভিস্তারা এবং গোএয়ার ফ্লাইট পরিচালনার অনুমতি পেয়েছে।

বর্তমানে বাংলাদেশি যাত্রীরা বিজনেস (ব্যবসায়িক ভিসা), মেডিকেল/মেডিকেল অ্যাটেনডেন্ট ভিসা, স্টুডেন্ট (শিক্ষার্থী ভিসা), রিসার্চ (গবেষণা), কনফারেন্স (সম্মেলন ভিসা), এমপ্লয়মেন্ট (কর্মসংস্থান ভিসা), ট্রেনিং (প্রশিক্ষণ) ভিসায় দেশটিতে যেতে পারলেও পর্যটক বা ট্যুরিস্ট ভিসা স্থগিত রেখেছে ভারত।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

বিমানের কলকাতা ফ্লাইট অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত

আপডেট সময় : ০৫:৪১:৪৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৯ নভেম্বর ২০২০

০৯ নভেম্বর ২০২০, ডেস্ক রিপোর্ট

অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করা হয়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের কলকাতা ফ্লাইট। আগামী বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে।

বিমানের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের নোটিশ বোর্ডে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এ বিষয়ে বিস্তারিত পরবর্তীতে জানানো হবে বলে জানায় বিমান।

এদিকে ফ্লাইট স্থগিতের বিষয়ে সুস্পষ্ট কোনো কারণ না থাকলেও এই মুহূর্তে ভারতে ট্যুরিস্ট ভিসা বন্ধ থাকায় কলকাতা রুটে যাত্রী সংকটকে দায়ী করছেন অনেকে।

এর আগে গত ২৮ অক্টোবর থেকে ‘এয়ার বাবল’ প্যাকেজ চুক্তির আওতায় ঢাকা থেকে কলকাতা, দিল্লি ও চেন্নাই- এই ৩ টি রুটে ফ্লাইট চালু করেছিল বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স।

এছাড়া ঢাকা থেকে কলকাতা এবং ঢাকা ও চট্টগ্রাম থেকে চেন্নাই রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করছে বেসরকারি বিমান পরিবহন সংস্থা ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স। এদিকে অনুমতি পেলেও এখনও ভারত রুটে ফ্লাইট পরিচালনা শুরু করেনি নভোএয়ার।

এয়ারবাবল চুক্তির অধীনে ভারতের এয়ার ইন্ডিয়া, ইন্ডিগো, স্পাইসজেট, ভিস্তারা এবং গোএয়ার ফ্লাইট পরিচালনার অনুমতি পেয়েছে।

বর্তমানে বাংলাদেশি যাত্রীরা বিজনেস (ব্যবসায়িক ভিসা), মেডিকেল/মেডিকেল অ্যাটেনডেন্ট ভিসা, স্টুডেন্ট (শিক্ষার্থী ভিসা), রিসার্চ (গবেষণা), কনফারেন্স (সম্মেলন ভিসা), এমপ্লয়মেন্ট (কর্মসংস্থান ভিসা), ট্রেনিং (প্রশিক্ষণ) ভিসায় দেশটিতে যেতে পারলেও পর্যটক বা ট্যুরিস্ট ভিসা স্থগিত রেখেছে ভারত।