ঢাকা ০৩:২৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কাপুরুষোচিত হামলার মাধ্যমে ইসরাইলি সেনাদের মনোবল চাঙ্গা হবে না: হামাস

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০২:৫৫:২৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৯ জুন ২০২১ ১৬৩ বার পড়া হয়েছে

১৯ জুন ২০২১, আজকের মেঘনা. কম, ডেস্ক রিপোর্টঃ

ফিলিস্তিনের প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের মুখপাত্র ফৌজি বারহুম বলেছেন, সাম্প্রতিক গাজা যুদ্ধে পরাজিত সেনাদের মনোবল চাঙ্গা করার লক্ষ্যে ইসরাইলের নয়া সরকার গাজা উপত্যকায় নতুন করে বিমান হামলা চালিয়েছে। তবে যুদ্ধবিরতির মধ্যে এ ধরনের কাপুরুষোচিত হামলা চালিয়ে দখলদার সেনাদের মনোবল চাঙ্গা করা যাবে না। হামাসের

শুক্রবার (১৮ জুন) গাজায় এক বক্তব্যে হামাসের এই মুখপাত্র এ মন্তব্য করেন । তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, ইহুদিবাদী শত্রুরা কাপুরুষোচিত আচরণ করলে ফিলিস্তিনি জনগণের অধিকার ও তাদের পবিত্র স্থানগুলো রক্ষায় দাঁতভাঙা জবাব দিতে প্রস্তুত রয়েছে হামাস। এটি আমাদের জাতীয়, ধর্মীয় ও নৈতিক দায়িত্ব এবং আমরা যেকোনো সে দায়িত্ব পালন করে ফিলিস্তিনি জাতির অধিকার প্রতিষ্ঠা ও আমাদের মাতৃভূমি পুনরুদ্ধার করব।

হামাসের এই মুখপাত্র বলেন, ইহুদিবাদী শত্রুদের সঙ্গে যেকোনো যুদ্ধের নিয়ম-কানুন ও পদ্ধতি প্রতিরোধ আন্দোলনগুলোই ঠিক করে দেবে। আমরা সাম্প্রতিক গাজা যুদ্ধে ইসরাইলকে বুঝিয়ে দিয়েছি, আল-আকসা মসজিদে আগ্রাসন চালালে তাকে কঠোর জবাব দেয়া হবে।

ইসরাইলি জঙ্গি বিমানগুলো গত বৃহস্পতিবার থেকে নতুন করে গাজা উপত্যকায় বোমাবর্ষণ করে। অথচ সাম্প্রতিক গাজা যুদ্ধের পর বর্তমানে হামাসের সঙ্গে তেল আবিবের যুদ্ধবিরতি চলছে। হামাসের মুখপাত্র ফৌজি বারহুমের মতে, বেনেত নাফতালির নেতৃত্বাধীন নয়া ইসরাইল সরকার সেনাদের ভেঙে পড়া মনোবল চাঙ্গা করার লক্ষ্যে নতুন করে এ হামলার নির্দেশ দিয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

কাপুরুষোচিত হামলার মাধ্যমে ইসরাইলি সেনাদের মনোবল চাঙ্গা হবে না: হামাস

আপডেট সময় : ০২:৫৫:২৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৯ জুন ২০২১

১৯ জুন ২০২১, আজকের মেঘনা. কম, ডেস্ক রিপোর্টঃ

ফিলিস্তিনের প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের মুখপাত্র ফৌজি বারহুম বলেছেন, সাম্প্রতিক গাজা যুদ্ধে পরাজিত সেনাদের মনোবল চাঙ্গা করার লক্ষ্যে ইসরাইলের নয়া সরকার গাজা উপত্যকায় নতুন করে বিমান হামলা চালিয়েছে। তবে যুদ্ধবিরতির মধ্যে এ ধরনের কাপুরুষোচিত হামলা চালিয়ে দখলদার সেনাদের মনোবল চাঙ্গা করা যাবে না। হামাসের

শুক্রবার (১৮ জুন) গাজায় এক বক্তব্যে হামাসের এই মুখপাত্র এ মন্তব্য করেন । তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, ইহুদিবাদী শত্রুরা কাপুরুষোচিত আচরণ করলে ফিলিস্তিনি জনগণের অধিকার ও তাদের পবিত্র স্থানগুলো রক্ষায় দাঁতভাঙা জবাব দিতে প্রস্তুত রয়েছে হামাস। এটি আমাদের জাতীয়, ধর্মীয় ও নৈতিক দায়িত্ব এবং আমরা যেকোনো সে দায়িত্ব পালন করে ফিলিস্তিনি জাতির অধিকার প্রতিষ্ঠা ও আমাদের মাতৃভূমি পুনরুদ্ধার করব।

হামাসের এই মুখপাত্র বলেন, ইহুদিবাদী শত্রুদের সঙ্গে যেকোনো যুদ্ধের নিয়ম-কানুন ও পদ্ধতি প্রতিরোধ আন্দোলনগুলোই ঠিক করে দেবে। আমরা সাম্প্রতিক গাজা যুদ্ধে ইসরাইলকে বুঝিয়ে দিয়েছি, আল-আকসা মসজিদে আগ্রাসন চালালে তাকে কঠোর জবাব দেয়া হবে।

ইসরাইলি জঙ্গি বিমানগুলো গত বৃহস্পতিবার থেকে নতুন করে গাজা উপত্যকায় বোমাবর্ষণ করে। অথচ সাম্প্রতিক গাজা যুদ্ধের পর বর্তমানে হামাসের সঙ্গে তেল আবিবের যুদ্ধবিরতি চলছে। হামাসের মুখপাত্র ফৌজি বারহুমের মতে, বেনেত নাফতালির নেতৃত্বাধীন নয়া ইসরাইল সরকার সেনাদের ভেঙে পড়া মনোবল চাঙ্গা করার লক্ষ্যে নতুন করে এ হামলার নির্দেশ দিয়েছে।