ঢাকা ০৩:৪৪ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দুপুরে ঝগড়া, বিকেলে মিললো লাশ

ডেস্ক রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৮:৫৫:৩০ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৭ জুন ২০২১ ১৫৭ বার পড়া হয়েছে

২৭ জুন ২০২১, আজকের মেঘনা. কম, ডেস্ক রিপোর্টঃ

গাজীপুরের শ্রীপুরে এক পোশাক শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার রাতে শ্রীপুর পৌরসভার গড়গড়িয়া মাষ্টারবাড়ি এলাকায় বসত ঘর থেকে ওই নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত আইরিন আক্তার রংপুরের মিঠাপুকুর থানার তালতলা ভবানীপুর এলাকার আলমগীর হোসেনের মেয়ে। বছর দেড়েক আগে উজ্জ্বল মিয়া নামের এক ব্যক্তির সঙ্গে তার বিয়ে হয়। স্বামী-স্ত্রী দু’জনই পোশাক কারখানার শ্রমিক। তারা গড়গড়িয়া মাষ্টার বাড়ি এলাকায় ভাড়া বসবাস করে আসছিলেন।

স্থানীয়রা জানান, আইরিনকে বিয়ে করার আগেও উজ্জ্বল আরেকটি বিয়ে করেন। কিন্তু এ বিষয়টি দ্বিতীয় স্ত্রীর কাছে গোপন রাখেন। সম্প্রতি প্রথম বিয়ের বিষয় জানার পর থেকেই তাদের মধ্যে কলহ শুরু হয়। শনিবার দুপুরেও তাদের মধ্যে ঝগড়া হয়। বিকেলে ঘরের ভেতরে খাটের ওপর আইরনের লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেন প্রতিবেশীরা।

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার পর থেকে স্বামী উজ্জল মিয়া পলাতক রয়েছে। আইরিনের গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, শ্বাসরোধ করে হত্যার পর স্বামী পালিয়ে গেছে।

শ্রীপুর থানার ওসি খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, লাশ উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

ট্যাগস :

দুপুরে ঝগড়া, বিকেলে মিললো লাশ

আপডেট সময় : ০৮:৫৫:৩০ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৭ জুন ২০২১

২৭ জুন ২০২১, আজকের মেঘনা. কম, ডেস্ক রিপোর্টঃ

গাজীপুরের শ্রীপুরে এক পোশাক শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার রাতে শ্রীপুর পৌরসভার গড়গড়িয়া মাষ্টারবাড়ি এলাকায় বসত ঘর থেকে ওই নারীর লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত আইরিন আক্তার রংপুরের মিঠাপুকুর থানার তালতলা ভবানীপুর এলাকার আলমগীর হোসেনের মেয়ে। বছর দেড়েক আগে উজ্জ্বল মিয়া নামের এক ব্যক্তির সঙ্গে তার বিয়ে হয়। স্বামী-স্ত্রী দু’জনই পোশাক কারখানার শ্রমিক। তারা গড়গড়িয়া মাষ্টার বাড়ি এলাকায় ভাড়া বসবাস করে আসছিলেন।

স্থানীয়রা জানান, আইরিনকে বিয়ে করার আগেও উজ্জ্বল আরেকটি বিয়ে করেন। কিন্তু এ বিষয়টি দ্বিতীয় স্ত্রীর কাছে গোপন রাখেন। সম্প্রতি প্রথম বিয়ের বিষয় জানার পর থেকেই তাদের মধ্যে কলহ শুরু হয়। শনিবার দুপুরেও তাদের মধ্যে ঝগড়া হয়। বিকেলে ঘরের ভেতরে খাটের ওপর আইরনের লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেন প্রতিবেশীরা।

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার পর থেকে স্বামী উজ্জল মিয়া পলাতক রয়েছে। আইরিনের গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, শ্বাসরোধ করে হত্যার পর স্বামী পালিয়ে গেছে।

শ্রীপুর থানার ওসি খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, লাশ উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।